মুগ পাকন

মুগ পাকন

মুগ পাকন

রেসিপি ও ছবিঃ হেলেনা পারভিন রুমা

উপকরণঃ মুগ ডাল ১ কাপ
চালের গুঁড়া ২ কাপ
ঘি ২ টে চামচ
ডিম ১ টা
জর্দার রঙ সামান্য শুধুমাত্র পিঠার রং সুন্দরের জন্য (না দিলেও চলবে)
লবণ (পরিমাণ মতো)
গরম পানি (পরিমাণ মতো) (আমার ৪ কাপ লেগেছে)
তেল ডুবো তেলে ভাজার জন্য (পরিমাণ মতো)

সিরার উপকরণঃ চিনি ২ কাপ
পানি ১ কাপ
এলাচ ২ টা
দারচিনি ১ টা

রান্না করার নিয়মঃ প্রথমে মুগ ডাল হালকা টেলে যখনই এর ঘ্রান বের হয়ে আসবে তখন চুলা থেকে নামিয়ে পানি দিয়ে ধুয়ে ১/২ ঘন্টার জন্য ভিজিয়ে রাখুন। যখন ডাল ফুলে উঠবে তখন ৩ কাপ পানি, লবণ ও সামান্য জর্দার রঙ দিয়ে ডাল চুলায় জ্বাল দিন। তারপর ডাল যখন সিদ্ধ হয়ে আসবে তখন একটি হুইক্স অথবা ডাল ঘুটনি দিয়ে ভালো ভাবে ঘুটে নিন। এর সাথে আরও ১ কাপ গরম পানি ও ঘি দিয়ে একটু নেড়ে চালের গুঁড়া দিয়ে ঢেকে একদম কম আঁচে ৩-৪ মিনিট জ্বাল দিন। ৩-৪ মিনিট পর ঢাকনা খুলে একটি কাঠি দিয়ে ভালোভাবে সব একত্রে নেড়ে মিশিয়ে নিন। তারপর একটি ছড়ানো প্লেটে কাই (খামির) ঢেলে একটু ঠান্ডা করে অর্থাৎ কুসুম গরম অবস্থায় ১ টি ডিম ফেটে দিয়ে কাই ভালো করে মথে নিন।

মুগ পাকন

এবার কিছুটা কাই নিয়ে মোটা রুটি বেলে ১ ইঞ্চি পুরু রেখে রুটির উপর তেল মেখে খেজুর কাটা বা টুথ পিক দিয়ে পছন্দমত ডিজাইন করে নিন। এভাবে একটা একটা করে সবগুলো পিঠা ডিজাইন করে বানিয়ে নিন। সব পিঠা বানানো হয়ে গেলে ডুবো তেলে এপাশ-ওপাশ সোনালি করে ভেজে নিন। এখন সিরার জন্য চিনি, পানি, এলাচ, দারচিনি সব একত্রে জ্বাল দিয়ে সিরা যখন এক তার হবে (একটু আঠালো হবে) তখন চুলা থেকে নামিয়ে ভেজে রাখা পিঠাগুলো এই সিরাতে ভিজিয়ে ৭-৮মিনিট রাখুন। তারপর সিরা থেকে উঠিয়ে গরম গরম অথবা ঠান্ডা অবস্থায় পরিবেশন করুন। এই পিঠা উপর দিক দিয়ে মচমচে এবং ভিতরে রসালো আর খেতে অসাধারণ।

নোটসঃ
* কাই অবশ্যই ভালোভাবে মথে নিতে হবে।
* রুটি বেলার সময় বাকি কাই একটি নরম ভেজা কাপড় দিয়ে ঢেকে রাখতে হবে, যাতে উপরে শক্ত হয়ে না যায়।
* যদি মনে হয় কাই নরম হয়ে গেছে, তাহলে চুলায় আরেকটু রেখে কাঠি দিয়ে নেড়ে নিলেই হবে।
* এই পিঠা এক সপ্তাহের মতো সংরক্ষণ করতে পারবেন।

রেসিপি.ঘুড়ি.বাংলা একটি ওয়েব ম্যাগাজিন। রেসিপি.ঘুড়ি.বাংলা, ঘুড়ি এর একটি অঙ্গ প্রতিষ্ঠান। “রেসিপি.ঘুড়ি.বাংলা“ হচ্ছে বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় গল্প ও কবিতার ওয়েবসাইটগুলোর মধ্যে অন্যতম। আমাদের ওয়েবসাইটটি দেশের গন্ডি পেরিয়ে ভারত, নেপাল, যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য, কানাডাসহ বিভিন্ন দেশের মানুষের কাছে যেতে সক্ষম হয়েছে।